জ্যেষ্ঠপুত্র হারুনের নির্বাচনী প্রচারণায় সাবেক সংসদ সদস্য রোকেয়া আহমেদ লাকী

0
313

নরসিংদী প্রতিনিধি:
পরিবারের জ্যেষ্ঠপুত্র হারুন অর রশিদ এর নির্বাচনী প্রচারণায় মাঠে নেমেছেন রাজনীতিবিদ ও অষ্টম জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত মহিলা আসনের সাবেক সংসদ সদস্য
তাঁর ছোটমা রোকেয়া আহমেদ লাকী।
জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদ হারুন অর রশিদ নরসিংদী পৌর নির্বাচনে বিএনপি থেকে ধানের শীষ প্রতীকে মনোনীত হয়েছেন।

এবারের মেয়র পদে ভোটের মাঠে মূল আলোচনায় রয়েছেন বিএনপির হারুন অর রশিদ (ধানের শীষ প্রতিক)।
নির্বাচনী প্রচারে মাঠে নেমেছেন হারুন অর রশিদ এর পরিবার।
বিভিন্ন দিকে লিফলেট হাতে নির্বাচনী প্রচারণায় চষে বেড়াচ্ছেন তাঁরা ভোটারদের বাড়ি বাড়ি। নির্বাচনী প্রচারণা, স্লোগানে পাশে রয়েছেন বৌয়াকুড়বাসী।

রবিবার (৭ই ফেব্রুয়ারী) তাঁদের যাত্রা ছিল বাগদি এলাকায়। প্রায় সাত ঘন্টা নির্বাচনী প্রচারণা চালান তাঁরা সেখানে। বাগদিবাসী বরাবরই বিএনপি’র সমর্থক বলে জানা গেছে। রোকেয়া আহমেদ লাকী’র কাছে এলাকাবাসীর একটাই দাবী, তাঁরা যেন নিজ ভোটটি সময়মত দিতে পারেন।

এর আগেও আসন্ন নির্বাচনে মেয়র পদে পুত্র হারুন অর রশিদ এর অবস্থান নিশ্চিত করতে তিনি বিভিন্ন এলাকাসহ নিজ জন্মস্থান সাটিরপাড়ায় উঠান বৈঠকে বক্তৃতা দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘ বিগত ১৫ বছরে আমরা সঠিকভাবে ভোট দিতে পারিনি। গনতন্ত্র ও ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনতে আমাদের নিজেকেই চেষ্টা করতে হবে। আমাদের ভোট আমরা দিব যাকে খুশী তাকে দিব।’

ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিতে না পেরে আগ্রহ হারিয়ে ফেলা জনসাধারণের প্রতি অনুরোধ করে তিনি বলেন, ‘আপনারা দয়াকরে ভোটকেন্দ্রে যাবেন। মারামারি সহিংসতার ভয়ে ঘরে বসে থাকলে যোগ্য প্রার্থীরা বঞ্চিত হবে এবং শহীদ জিয়ার সৈনিকেরা হেরে যাবেন।’

এলাকাবাসীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সঠিক অবকাঠামোর একটি রাজনৈতিক পরিবেশ এবং সমাজ গঠনে আমার ছেলে হারুন অর রশিদকে ভোট দিন।

রাজনৈতিক পরিবারে জন্ম হারুন অর রশিদ তার পিতা নরসিংদীর সাবেক এমপি সামসুদ্দীন আহমেদ এছাক(চার বার সংসদ সদস্য) এর রাজনৈতিক ধারাকে চলমান রাখতে মেয়র পদে লড়ছেন। নরসিংদী পৌরসভার মেয়র পদে আরো লড়ছেন আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের মো.আমজাদ হোসেন বাচ্চু, বিদ্রোহী স্বতন্ত্র প্রার্থী মোবাইল ফোন প্রতীকের এসএম কাইয়ুম, ও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর মনোনীত প্রার্থী হাতপাখা প্রতীকের আসাদুল হক হামিদ!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here