হিজাব পরে কলেজে যাওয়ায় ২৪ ছাত্রী বরখাস্ত

0
28

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
কলেজ ড্রেসের পরিবর্তে হিজাব পরায় ২৪ ছাত্রীকে বরখাস্ত করেছে ভারতের কর্নাটক রাজ্যের একটি কলেজ।

ভারতীয় গণমাধ্যম দ্য হিন্দু বুধবার (৮ জুন) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

উপ্পিনগাদি সরকারি ফার্স্ট গ্রেড নামে একটি কলেজের কর্তৃপক্ষ সোমবার ওই শিক্ষার্থীদের বরখাস্ত করে বলে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

কলেজ কর্তৃপক্ষের অভিযোগ, ড্রেস কোড লঙ্ঘন করে ওই ছাত্রীরা হিজাব পরে ক্লাসে এসেছিল।

যদিও বার্তা সংস্থা পিটিআই’কে পুত্তুর বিজেপি বিধায়ক এবং কলেজ উন্নয়ন কমিটির (সিডিসি) চেয়ারম্যান সঞ্জীব মাতান্দুর বলেন, ‘শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করায় তাদের সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে।’

জানা গেছে, গত সপ্তাহে দক্ষিণ কন্নড় জেলার পুত্তুর শহরের ওই কলেজটিতে বেশ কিছু ছাত্রী বিক্ষোভ করেন। শ্রেণিকক্ষে হিজাব পরার অনুমতি দাবি করে তারা।

প্রতিবেদনে বলা হয়, কর্ণাটক হাইকোর্টের রায়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে হিজাব নিষিদ্ধ করা সত্ত্বে ওই ছাত্রীরা এ নিয়ে বিক্ষোভ করেছে। এ জন্য তাদের সাজা দিয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষ।

এর আগে, একই অভিযোগে গত সপ্তাহেই সাতজন ছাত্রীকে বরখাস্ত করেছিল কলেজটি। এ নিয়ে ক্লাসে হিজাব পরার অভিযোগে ৩১ ছাত্রীকে সাময়িক বরখাস্ত করল প্রতিষ্ঠানটি।

সাম্প্রতিক সময়ে মুসলিম ছাত্রীদের ক্লাসে হিজাব পরা নিয়ে ঘোলাটে পরিস্থিতি বিরাজ করছে ভারতের কর্নাটক রাজ্যে। গত ফেব্রুয়ারিতে রাজ্যটির শিভামোগ্গা জেলার শিরালাকোপ্পার একটি সরকারি কলেজে হিজাব পরে আসায় ৫৮ জন ছাত্রীকে সাময়িক বহিষ্কার করে কলেজ কর্তৃপক্ষ।