রুবিনা বেগমের অসামাজিক কার্যকলাপের বিরুদ্ধে টুকেরবাজারে মানববন্ধন

0
27

নিউজ ডেস্ক:
সিলেট মহানগরীর টুকেরবাজার তেমুখি এলাকার বাসিন্দা রুবিনা বেগমের আসামাজিক কার্যকলাপে র বিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন এলাকার মহিলারা।
সোমবার বিকেলে সিলেট মহানগরীর তেমুখিস্হ সাহেবেরগাঁও এলাকায় স্হানীয় মহিলাদের উদ্যোগে এ কর্মসুচীর আয়োজন করা হয়। এতে এলাকার স্হানীয় সর্বস্তরের বিপুল সংখ্যক মহিলারা অংশনেন। প্রতিবাদ এ কর্মসচীতে তারা বলেন, সিলেট মহানগরীর ৩৮ নং ওয়ার্ডের টুকেরবাজার তেমুখি সাহেবেরগাঁও এলাকার বাসিন্দা রুবিনা বেগম একজন দুশ্চরিত্রা নারী,সে ঘৃণিত ও সমাজ বিরোধী অনৈতিক কার্যকলাপের সঙ্গে দীর্ঘদিন যাবত জড়িত রয়েছে। তারা রুবিনা বেগমের সমাজ বিরোধী সকল অনৈতিক কার্যকলাপ বন্ধের দাবিসহ তাকে আইনের আওতায় নিয়ে আসার জন্য প্রশাসনের প্রতি দাবি জানান। তারা রুবিনার কাল্পনিক,সাজানো মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমুলক দায়ের করা মামলায় কারাগারে আটক,বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী ও স্হানীয় সাহেবেরগাঁও যুবকল্যাণ পরিষদের সভাপতি মিছবাহ উদ্দিনের অবিলম্বে তারা মুক্তি দাবি করেন ।
এরআগে এলক্ষ্যে গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় টুকেরবাজার তেমুখি এলাকায় মানববন্ধন করেছেন এলাকাবাসী,একইসঙ্গে এলাকাবাসী প্রায় শতাধিক লোক গণস্বাক্ষর সম্বলিত সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার বরাবরে স্মারকলিপিও প্রদান করেছেন।স্মারকলিপিতে তারা বলেন,এসএমপি’র জালালাবাদ থানায় গত ৪ জুলাই ২০২২ তারিখে ‘রুবিনা বেগম’ নামক এক মহিলার দায়েরকৃত মামলায় মিছবাহ উদ্দিনকে ওই রাতে থানায় খবর দিয়ে নিয়ে আটক করা হয় বলে জানান এলাকাবাসী। এ প্রসঙ্গে স্মারকলিপিতে এলাকাবাসী বলেন,তাদের জানামতে উক্ত মামলার বাদী রুবিনা বেগম একজন অসৎ চরিত্র,সমাজের শান্তি শৃঙ্খলা বিনষ্টকারী, উগ্র ও বেপরোয়া চরিত্রের একজন মহিলা হন। বিগত প্রায় একযুগের বেশি সময় ধরে এলাকাবাসী ও তার পরিবারের সদস্যরা ওই মহিলার চারিত্রিক,অসামাজিক ও বেপরোয়া আচারনে তার কাছে চরম অসহায় ও জিম্মি হয়ে পড়েছেন। তার এহেন আচরনে কেউ প্রতিবাদ করলেই সে তাকে ফাঁসিয়ে দেওয়ার প্রকাশ্যে হুমকি দিয়ে বেড়ান রুবিনা।
তারা বলেন,রুবিনা বেগমের দায়ের করা মামলার বিবাদী মিছবাহ উদ্দিন টুকেরবাজার এলাকার অতি সুপরিচিত একজন ব্যাবসায়ী, সমাজ হিতৈশী সৎ চরিত্রের একজন লোক বটে। তিনি স্হানীয় সাহেবেরগাঁও যুব কল্যাণ পরিষদ নামক সামাজিক সংগঠনের বর্তমান সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। একইসাথে তিনি বাদী রুবিনা বেগমের আপন চাচাতো ভাই হন। পারিবারিক ও সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে রুবিনা বেগমের অশালীন ও অসামাজিক আচরনে বিবাদী মিছবাহ উদ্দীন দীর্ঘদিন যাবত জোরালো প্রতিবাদ করে আসছে,যেকারনে বাদী রুবিনা বেগম তার উপর চরম ক্ষোব্ধ হয়ে ইঠে। যার প্রেক্ষিতে সে সম্পুর্ন কাল্পনিক ঘটনা সাজিয়ে বিবাদী মিছবাহ উদ্দীনের বিরুদ্ধে সম্পুর্ন মিথ্যা ও বানোয়াট একটি অভিযোগ দায়ের করেছে বলে এলাকাবাসী মনে করেন। উক্ত অভিযোগের প্রেক্ষিতে মিছবাহ উদ্দীন বর্তমানে জেল হাজতে রয়েছেন।তারা বলেন,রুবিনা বেগমের দাপট ও অত্যাচারে তার আপন ভাইদের মধ্যে দুই ভাই নিজ বাড়ি ত্যাগ করে অন্যত্রে বসবাস করছেন,আর আরেক ভাই মুহিব উদ্দীন দীর্ঘদিন প্রবাসে থেকে বর্তমানে দেশে এসে বোন রুবিনা বেগমের বেপরোয়া আচরন ও অব্যাহত হুমকি ধামকিতে তিনি চরম নিরাপত্তাহীনতায় আছেন বলে এলাকাবাসীকে অবহিত করেছেন।রুবিনা বেগমের এহেন কার্যকলাপের বিরুদ্ধে টুকেরবাজার তেমুখি এলাকাবাসী তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন, এলাকার স্হানীয় শান্তিপ্রিয় জনসাধারণ,এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা নিশ্চিতে রুবিনা বেগমের অত্যাচার ও নির্যাতন কাল্পনিক মিথ্যা মামলা থেকে নিরপরাদ মানুষদের রক্ষা পেতে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্হা গ্রহনে এসএমপি’র পু্লিশ কমিশনারের কাছে জোরদাবি জানান। একইসঙ্গে এলাকাবাসী কারাগারে আটক ব্যাবসায়ী মিছবাহ উদ্দিনের অবিলম্বে মুক্তি দাবি করেন।