জুড়ীতে সড়কে পানি জমে দুর্ভোগ

0
24

নিউজ ডেস্ক:
মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলা সদরের চৌমুহনী থেকে খাদ্যগোদাম সড়কের ভবানীগঞ্জ বাজার এলাকায় সামান্য বৃষ্টিতেই সড়কে পানি জমে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। দীর্ঘদিন ধরে এ অবস্থা চলছে। পানিনিষ্কাশনের সুষ্ঠু ব্যবস্থা না থাকায় গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এতে দুর্ভোগে পড়েছেন রাস্তাদিয়ে চলাচলকারী মানুষ।

এ সড়কটির চৌমুহনী থেকে খাদ্যগোদাম এলাকা পর্যন্ত ১ কিলোমিটার আরসিসি ঢালাই কাজের টেন্ডার হয়েছে গত বছরের অক্টোবর মাসে। জামিল ইকবাল নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান প্রায় ১১ কোটি টাকার এই কাজ পেয়েছে। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে তারা কার্যাদেশ পায়। কিন্তু প্রতিষ্ঠানটি এখনো সড়কে কাজ শুরু করেনি। এতে গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে বাজার এলাকায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। দুর্ভোগে পড়েন মানুষ।

দুর্ভোগের এ চিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি নজরে আসে দুবাই সফরে থাকা স্থানীয় সাংসদ এবং পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিনের। এরপর তিনি মানুষের দুর্ভোগ লাগবে দ্রুত সড়কটির কাজ শুরু করানোর জন্য সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলীকে মুঠোফোনে নির্দেশনা দেন।

পরিবেশমন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন বলেন, ‘ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান কাজ শুরু করতে বিলম্ব করায় বৃষ্টিতে পানি জমে মানুষের দুর্ভোগ হচ্ছে। আমি দেশে বাইরে। বিষয়টি আমার নজরে আসায় সওজের নির্বাহী প্রকৌশলীকে সড়কে জমে থাকা পানিনিষ্কাশন করে মানুষের চলাচলের উপযোগি করতে নির্দেশনা দিয়েছি। মানুষের যেন জলাবদ্ধতায় কষ্ট না করেন। এছাড়া ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান যেন দ্রুত কাজ শুরু করে সে বিষয়েও নির্দেশা দিয়েছি।’

সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশল মো. জিয়া উদ্দিন বলেন, ‘টেন্ডার ও কার্যাদেশ হয়েছে। আরসিসি ঢালাইয়ের কাজ শুরুর আগে কিছু প্রক্রিয়া অনুসরণ করতে হয়। তাই কাজ শুরু করতে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিলম্ব হয়েছে। মন্ত্রী মহোদয় ফোনে বলার পর সন্ধ্যায় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লোকজনকে ডেকেছি। তাদের দ্রুত কাজ শুরু করতে বলেছি।’